Date : 2024-02-25

ইডির আশঙ্কা শেখ শাহজাহানসমস্ত নথি তথ্য প্রমাণ নষ্ট এবং লোপাট করে দিতে পারে

ষষ্ঠী চট্টোপাধ্যায়, সাংবাদিক : ইডি আইনজীবী:, রাজ্য সরকার বলছে এটা একটা ছোট ঘটনা.. এটা কোন ছোট ঘটনা নয়। পূর্ব পরিকল্পিত ভাবে এই ঘটনা ঘটানো হয়েছে। ঘটনায় ১০দিন হয়ে গেল আজও রাজ্য পুলিশ অভিযুক্তকে গ্রেফতার করতে পারেনি… তাহলে বিচারপতি বুঝতেই পারছেন তিনি কতটা প্রভাবশালী।

বিচারপতি: যখন পুলিশ তল্লাশি অভিযান গেল ঘটনার পর। অভিযুক্তকে না পেয়ে পুলিশকি শেখ শাহজাহানের মোবাইলের টাওয়ার লোকেশন দেখে ছিল। সেই বাড়িতে না থাকলেও আশেপাশে তো ছিল?

পুলিশ বা ইডি আধিকারিকরা তার মোবাইল লোকেশন দেখেছিল কেন্দ্র এবং রাজ্যের আইনজীবীদের উদ্দেশ্যে..
ইডি: রাজ্য পুলিশ ইচ্ছাকৃত ভাবেই শেখ শাহজাহানকে পালাতে সাহায্য করেছে বলে দাবি। কারণ CRPF পক্ষে লোকালয় চেনা সম্ভব নয়। পুলিশ কোন সাহায্যই করেনিবলে অভিযোগ।

শেখ শাহজাহানের বাড়িতে যাওয়ার আগেই তার কাছে খবর পৌঁছে যায়… কিন্তু কি ভাবে। ইডি আইনজীবী রাজু: সেখানে যাচ্ছে সেটা শুধুমাত্র পুলিশের কাছেই খবর ছিল। খবর পৌঁছে যাওয়ার পরেই শেখ শাহজাহানও তার দলবল বলে ওই দিন এই ঘটনা ঘটিয়েছে। প্রত্যেকের কাছে লাঠি, ইট ছিল।

বুধবার মামলা চূড়ান্ত রায় দেবেন বলেই সিদ্ধান্ত নিয়েছেন বিচারপতি জয় সেনগুপ্ত।