Date : 2024-05-26

শেখ শাহাজাহানের বিরুদ্ধে ৪২টি মামলা ইডির হাতে তুলে দিতে নারাজ প্রধান বিচারপতির ডিভিশন বেঞ্চের।

ষষ্ঠী চট্টোপাধ্যায়,সাংবাদিক : সন্দেশ খালির শত প্রণোদিত জনস্বার্থ মামলা য় রাজ্যের কাছে জমা হওয়া পুরনো ৪২টি মামলার কি অবস্থান ও সেটা জানতে চেয়েছে আদালত ।এই মর্মে রাজ্যের কাছে রিপোর্ট তলব প্রধান বিচারপতির ।ইডি ওই মামলার দায়িত্ব নিতে চাইলেও এখনই সেই দায়িত্ব ইডি দিতে নারাজ প্রধান বিচারপতির ডিভিশন বেঞ্চ।আদালতে রাজ্যের রিপোর্ট জমা পড়ার পর আদালত সিধ্যান্ত নেবে সেটা র তদন্ত কে করবে নির্দেশ প্রধান বিচারপতির ডিভিশন বেঞ্চে এর।সন্দেশ খালির বর্তমান পরিস্থিতি জানতে পেরে উদ্বিগ্ন কলকাতা হাইকোর্টের প্রধান বিচারপতির ডিভিশন বেঞ্চ। SCST কমিশন সহ যারা যারা রিপোর্ট দিয়েছে সব রিপোর্ট খতিয়ে দেখবে আদালত।মামলার শুনানি শেষ রায়দান স্থগিত

উল্লেখ্য,কলকাতা হাইকোর্টের প্রধান বিচারপতি টি এস শিবজ্ঞানমের ডিভিশন বেঞ্চ সোমবার ২৭শে ফেব্রুয়ারিতে জানিয়েছিলেন শাহজাহান শেখের গ্রেফতারিতে কোনও বাধা নেই। তারপরেই রাজ্যপাল বোসের কড়া বার্তা, যত তাড়াতাড়ি সম্ভব শেখ শাহজাহানকে গ্রেফতার করুক রাজ্য। আর তা না পারলে, কেন গ্রেফতার করা গেল না সেই বিষয়ে আগামী ৭২ ঘণ্টার মধ্যে কারণ দর্শাতে হবে রাজ্যকে। হাইকোর্টের থেকে শেখ শাহজাহানের গ্রেফতারির প্রসঙ্গে গ্রিন সিগন্যাল দেওয়ার পরই রাজভবন থেকে রাজ্যের উদ্দেশে কড়া বার্তা দিতে দেখা গেল বোসকে। এর পাশাপাশি সন্দেশখালিতে একটি বাচ্চাকে ছুড়ে ফেলার অভিযোগ উঠেছিল দুষ্কৃতীদের বিরুদ্ধে। সেই অভিযোগটিও তদন্ত করে সত্যতা যাচাইয়ের নির্দেশ দিয়েছেন রাজ্যপাল সিভি আনন্দ বোস। সঙ্গে এও নির্দেশ দিয়ে রেখেছেন যে অভিযোগের সত্যতা প্রমাণিত হলে কঠোর ব্যবস্থা নিতে হবে এবং রিপোর্ট জমা দিতে হবে।