Date : 2024-04-18

ক্যান্সার চিকিৎসার নতুন চিকিৎসা কেন্দ্র বাঁকুড়া শহরে

রোগের নাম “ক্যান্সার” । কয়েক দশক পূর্বেও এই শব্দের পাশে আর একটা শব্দ বসত যার নাম “অ্যান্সার” । অর্থ্যাৎ ক্যান্সারের কোনো অ্যান্সার ছিল না । কারণ ক্যান্সার হলে মৃত্যু অনিবার্য ছাড়া যার বিকল্প কোনো উত্তর ছিল না । তখন ক্যান্সার নামক এই মারণ রোগের কোন ওষুধতো ছিলই না এমনকি ছিল না সঠিক কোনো চিকিৎসাও । যার ফলে বেশীর ভাগ ক্যান্সার আক্রান্ত মানুষকে মৃত্যুবরণ করতে হতো ।

তবে এখন সময়ের সঙ্গে সঙ্গে চিকিৎসা ব্যবস্থাতেও আমূল পরিবর্তন এসেছে । বিদেশে এমনকি আমাদের দেশেও ক্যান্সার রোগের সঠিক চিকিৎসায় আরো বহু বছর মানুষকে বাঁচিয়ে রাখা সম্ভব হচ্ছে । আমাদের রাজ্যে যে কয়েকটি হাসপাতালে ক্যান্সারের ভালো চিকিৎসা হচ্ছে তার মধ্যে অন্যতম পশ্চিম বর্ধমান জেলার দুর্গাপুরের রাঙামাটি পথ সংলগ্ন “মোহনানন্দ ক্যান্সার ডাইগোনেস্টিক এণ্ড ওয়েলফেয়ার সোসাইটি” ।

বিগত ১০ বছর ধরে দুর্গাপুরের এই চিকিৎসা কেন্দ্রে ক্যান্সারের চিকিৎসা চলছে, যার ফলে উপকৃত হচ্ছেন পশ্চিম বর্ধমান জেলার অসংখ্য ক্যান্সার আক্রান্ত মানুষ । এবার এই সংস্থার একটি শাখা তৈরী হলো বাঁকুড়া জেলার সদর শহর বাঁকুড়া’র প্রতাপবাগানে । ২ এপ্রিল সকালে বাঁকুড়া শহরের এই চিকিৎসা কেন্দ্রের উদ্বোধন অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন দুর্গাপুরের “মোহনানন্দ ক্যান্সার ডাইগোনেস্টিক এণ্ড ওয়েলফেয়ার সোসাইটি”-র তিনজন ক্যান্সার বিশেষজ্ঞ ডাঃ সায়ন চক্রবর্তী, ডাঃ কুণাল চৌধুরী ও ডাঃ কনিষ্ক সরকার । এছাড়াও সংস্থার পক্ষ থেকে উপস্থিত ছিলেন সুরজিৎ দে, রামপ্রসাদ সেনগুপ্ত, ত্রিলোককুমার দত্ত প্রমুখ ।

এখন থেকে বাঁকুড়া’র এই “মোহনানন্দ ক্যান্সার হাসপাতাল”-এ প্রতি বৃহস্পতিবার ক্যান্সার বিশেষজ্ঞরা উপস্থিত থাকবেন ক্যান্সার আক্রান্তদের চিকিৎসার জন্য । এখানে চিকিৎসার জন্য রোগীদের প্রথমে ৫০ টাকা দিয়ে নাম লেখাতে হবে । পরবর্তী পর্যায়ে মাথাপিছু খরচ ৩০০ টাকা । সকাল ১০টা থেকে দুপুর ১২টা পর্যন্ত এখানে নাম নথিভুক্ত করা যাবে । আশার খবর এটাই বাঁকুড়া শহরে এই চিকিৎসার সুযোগ এসে যাওয়ায় এই শহরের ক্যান্সার আক্রান্ত রোগীদের আর সময় নষ্ট করে ও অতিরিক্ত অর্থ ব্যয় করে আর দুর্গাপুরে ছুটতে হবে না । উদ্বোধনের দিন ২ এপ্রিল সম্পূর্ণ বিনামূল্যে ১৬ জন রোগীর চিকিৎসা করা হয় ।