Date : 2024-05-26

অবশেষে প্রায় দু’বছর পর পশ্চিমবঙ্গ ফার্মাসি কাউন্সিলের নির্বাচন সংক্রান্ত জটিলতা কাটল কলকাতা হাইকোর্টে

ষষ্ঠী চট্টোপাধ্যায়, সাংবাদিক: অবশেষে প্রায় দু’বছর পর পশ্চিমবঙ্গ ফার্মাসি কাউন্সিলের নির্বাচন সংক্রান্ত জটিলতা কাটল কলকাতা হাইকোর্টে। ২০২২ সাল থেকে কাউন্সিলের ভোট নিয়ে টালবাহানা চলছিল। ওই বছর ডিসেম্বর মাসে ফার্মাসি আইন ১৯৪৮ এর ১৯ নম্বর ধারা অনুযায়ী ভোট ঘোষণা হয়। সেই ভোটে ৩৫টি মনোনয়ন জমা পড়লেও তার মধ্যে ২৫টি মনোনয় অনৈতিক ভাবে বাতিল করা হয় বলে অভিযোগ। এখান থেকেই যাবতীয় কিছুর সূত্রপাত।

যেসব মনোনয়ন বাতিল হয়, তাঁদের মধ্যে চার জন হাইকোর্টের দ্বারস্থ হন। দীর্ঘদিন সেই মামলা চলার পর ২০২৩ সালের ফেব্রুয়ারি মাসে বিচারপতি মৌসুমি ভট্টাচার্য মামলায় রায় ঘোষণা করে জানান, মামলাকারীদের মনোনয়নের বিষয়টি পুর্নবিবেচনা করতে হবে। এই নির্দেশ চ্যালেঞ্জ করে পাল্টা ডিভিশন বেঞ্চের দ্বারস্থ হয় কাউন্সি। প্রধান বিচারপতির ডিভিশন বেঞ্চে সেই মামলার শুনানি চলে। শেষপর্যন্ত প্রধান বিচারপতির ডিভিশন বেঞ্চ রায় ঘোষণা করলে দ্বিখন্ডিত রায় আসে। প্রধান বিচারপতি টি এস শিবজ্ঞানম ও বিচারপতি হিরণ্ময় ভট্টাচার্যর মত পার্থক্যের জন্য বিষয়টি ফের সিঙ্গল বেঞ্চের বিচারপতি সব্যসাচী ভট্টাচার্যর কাছে যায়। বিচারপতি ভট্টাচার্য প্রধান বিচারপতি শিবজ্ঞানমের রায়কেই মান্যতা দেন। সেই মত চূড়ান্ত রায় ঘোষণা করে প্রধান বিচারপতি জানিয়েছেন, আগামী চার সপ্তাহের মধ্যে নির্বাচন প্রক্রিয়া সম্পন্ন করতে হবে। সেই সঙ্গে যে ২৫টি মনোনয়ন বাতিল করা হয়েছিল তাদের মনোনয়নের বিষয়টি পুর্নবিবেচনা করতে হবে। এছাড়াও নির্দেশে উল্লেখ, স্বাস্থ্য দপ্তরের এক সিনিয়র অফিসারকে অবজারভার নিয়োগ করে যাবতীয় প্রক্রিয়া সম্পন্ন করতে হবে।