Date : 2019-11-18

৬৮ ঘন্টা পরেও ১০০ ফুট গভীর গর্তে আটকে ২ বছরের শিশু….

ওয়েব ডেস্ক: নলকূপের জন্য গর্ত খোঁড়া হয়েছিল। শুক্রবার দুপুরে সেখানেই পড়ে যায় ২ বছরের শিশু। আর তারপর ৬৮ ঘন্টা পার। সেদিন রাত থেকে জোরকদমে উদ্ধারকার্য চালানোর পরেও উদ্ধার করা গেল না শিশুটিকে। ঘটনাটি ঘটেছে তামিলনাড়ুর তিরুচিরাপল্লিতে। ঘটনাস্থলে রয়েছেন তামিলনাড়ুর স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যানমন্ত্রী সি বিজয়বাস্কার এবং রাজ্যের পর্যটন মন্ত্রী এন নাগার্জুন। ১০০ ফুট গভীর গর্তে কোনরকমে অক্সিজেন পাঠানোর চেষ্টা করা গেলেও খাবার বা জল পাঠানো সম্ভব হয়নি। ২ বছরের ওই শিশুটির নাম সুজয় উইলসন। ঘটনার ১ ঘন্টার মধ্যে শিশুটিকে উদ্ধার করতে নামে দমকল ও বিপর্যয় মোকাবিলা দফতরের কর্মীরা।

দীপাবলি উপলক্ষ্যে অযোধ্যা সাজবে ৫.৫১ লক্ষ প্রদীপে

কিন্তু ৬৮ ঘন্টায় একাধিক কসরত একের পর এক বিফল হয়ে যায়। এদিকে ১০০ ফুট গভীর গর্তে অক্সিজেন পৌঁছে দেওয়া সম্ভব হলেও পাঠানো সম্ভব হয়নি একবিন্দু জল ও খাবার। এই পরিস্থিতিতে গর্তের মধ্যে শিশুটির আদৌ কি অবস্থায় আছে তাই নিয়ে উঠছে প্রশ্ন। শনিবার সকাল পর্যন্ত বাচ্চাটির কান্নার আওয়াজ পাওয়া গেলেও সন্ধ্যার পর থেকে কোন সাড়া পাওয়া যায়নি। ফলে উদ্বেগ আরও বেড়েছে। শনিবার সকাল থেকেই ওএনজিসি-র আধিকারিকদের তত্ত্বাবধানে ওই গর্তের সমান ৩ ফুট দূরে আরও একটি গর্ত খোঁড়া হয়। তবে তাতেও শিশুটিকে উদ্ধার করা সম্ভব হয়নি। মোট ৩০০ জন উদ্ধারকারী দল শিশুটিকে উদ্ধার করার চেষ্টা করলেও এখনও পর্যন্ত সফল হতে পারেনি তারা। এই ঘটনায় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীও দুঃখ প্রকাশ করেছেন। তিনি জানান শিশুটিকে সত্ত্বর উদ্ধার করার চেষ্টা চলছে।