Date : 2019-11-19

সাংবাদিকদের “অপরাধী” তকমা, কালো কালিতে ঢাকলো খবরের কাগজের প্রথম পাতা….

ওয়েব ডেস্ক: শিরোনাম পড়ে অনেকেই হয়তো ঘরের ডাইনিং টেবিলে পড়ে থাকা খবরের কাগজের প্রথম পাতাটা খুলে দেখছেন। কই না তো, এমন তো কিছু হয়নি। ঘটনাটি ঘটেছে সুদূর অস্ট্রেলিয়ায়। দুর্নীতির বিরুদ্ধে সরব হওয়ার কারণে অস্ট্রেলিয়ার সাংবাদিকদের সরকারি তরফে ‘আপরাধী’ তকমা দেওয়ার প্রতিবাদে, অধিকাংশ সংবাদ পত্রিকার প্রথম পৃষ্ঠা কালো কালি দিয়ে ঢেকে দেওয়া হল খবর। দ্য সিডনি মর্নিং হেরাল্ড, দ্য অস্ট্রেলিয়ান ফিনান্সিয়াল রিভিউ, দ্য অস্ট্রেলিয়ান-সহ বেশ কয়েকটি সংবাদপত্র এদিন এই প্রতিবাদে অংশ নেয়। পত্রিকাগুলি প্রথম পাতার সংবাদগুলি কালো কালিতে মুছে দেওয়ার পাশাপাশি লাল কালির একটি সিল ছাপে, যাতে লেখা ‘গোপনীয়: ছাপার জন্য নয়’।

আরও পড়ুন : পরীক্ষায় সাদা খাতা জমা দিয়ে পুরো নম্বর পেতে চান? জেনে নিন নিনজা টেকনিক

প্রসঙ্গত, অস্ট্রেলিয়ার বিশেষ বাহিনী আফগানিস্তানে পশ্চিমি বাহিনীর সঙ্গে মিলিত হয়ে যুদ্ধের ষড়যন্ত্রে লিপ্ত হয়েছে, এই খবর অস্ট্রেলিয়ান ব্রডকাস্টিং কর্পোরেশনের দুই সাংবাদিক তুলে ধরেন। নিউজ কর্পোরেশন অস্ট্রেলিয়ার প্রতিবেদক এনিকা স্মেথার্স্ট তাঁর একটি প্রতিবেদনে দাবি করেন, সরকার জনগণের উপর নজরদারির পরিকল্পনা করছে। সেই প্রতিবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে সরকার ব্যাপক সমালোচনার মুখে পড়ে। এ দু’টি সংবাদকে কেন্দ্র করে চলতি বছরের জুনে এবিসির অফিস এবং এনিকা স্মেথাস্টের্র বাড়িতে পুলিশ অভিযান চালায়। এই ঘটনায় সংবাদ মাধ্যমগুলি প্রথম থেকেই সমালোচনায় মুখর হয়। গণমাধ্যমের স্বাধীনতার উপর আঘাত হানা হচ্ছে এই প্রতিবাদে সামিল হয় দেশের অধিকাংশ সংবাদ মাধ্যম। তাঁদের মত, সরকার যদি মানুষের সামনে সমস্ত সত্যই তুলে ধরছে তবে গণমাধ্যের প্রয়োজনীয়তা আর কি? অস্ট্রেলিয়ার প্রধানমন্ত্রীর মত, গণমাধ্যমের স্বাধীনতা অবশ্যই গুরুত্বপূর্ণ তবে আইনের অনুশাসনকেও তাঁদের মান্যতা দিতে হবে।