Date : 2021-05-09

মুষলধারে বৃষ্টিতে মৃত ১০, বানভাসি কেরল ফিরল গত বছরের স্মৃতি…

ওয়েব ডেস্ক: টানা দুদিন ধরে বাঁধভাঙা বৃষ্টিতে বিপর্যস্ত কেরল। আবহাওয়া দফতরের পূর্বাভাস আগামী ৪৮ ঘন্টায় ভারী বর্ষণের সম্ভবনা রয়েছে কেরল জুড়ে। ইতিমধ্যে মৃত্যু হয়েছে ১০ জন লোকের। মৃতের সংখ্যা আরও বাড়তে পারে বলে রাজ্য প্রশাসনের তরফে জানানো হয়েছে। গত বছর এই সময় ব্যাপক বৃষ্টিতে ভেসে গিয়েছিল কেরল। বন্যায় মৃত্যু হয়েছিল ৪৮৩ জন লোকের।

১০ লক্ষ মানুষ ক্ষতিগ্রস্থ হয়েছিল। বছর ঘুরতেই ফের সেই বন্যার স্মৃতি ফিরে এলো। প্রবল বৃষ্টিতে ভেসে গেছে কেরলের বেশীরভাগ অঞ্চল। কোঝিকোড়, ওয়েনাড়, ইড়ুক্কি সহ মোট ৪ জেলায় জারি করা হয়েছে রেড অ্যালার্ট। যদিও এখনও পর্ষন্ত রাজধানী তিরুবন্তপুরমে পরিস্থিতি ততটা জটিল আকার ধারণ করেনি। কেরলগামী অধিকাংশ ট্রেন বাতিল করা হয়েছে।

আরও পড়ুন : টাইফুনের থাবা, চিন জুড়ে জারি লাল সতর্কতা

পরিস্থিতির উপর নজর রেখে রবিবার পর্যন্ত বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে কোচি বিমান বন্দর। রাজ্যের অধিকাংশ স্কুল, কলেজ, অফিস বন্ধ রয়েছে তিনদিন ধরে। কেরলের উপর দিয়ে প্রবাহিত ৪৪ টি নদীর জলই বিপদসীমার উপর দিয়ে বইতে শুরু করেছে। পর্যটকদের ইদুক্কি, ওয়ানাড় সহ বেশ কিছু জায়গায় যেতে নিষেধ করা হয়েছে। সরিয়ে আনা হচ্ছে ওই সব জায়গার মানুষদের।

আরও পড়ুন : প্রবল বৃষ্টিতে জলমগ্ন মহারাষ্ট্রের কোলাপুর

ইতিমধ্যে পরিস্থিতি সামলাতে ভারতীয় সেনার কাছে সাহায্য চেয়ে পাঠিয়েছেন কেরলের মুখ্যমন্ত্রী। ওই সব অঞ্চলে ত্রাণের জন্য পাঠানো হয়েছে বায়ুসেনাদের। শুক্রবার থেকেই তারা নেমে পড়েছেন উদ্ধারকার্যে। কেরলের পাশাপাশি কর্ণাটকেও প্রবল বৃষ্টির জেরে জনজীবন বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছে। পরিস্থিতির উপর নজর রাখছে কেন্দ্র সরকার।