Date : 2019-12-06

দাম বড় বালাই! সোনা ছেড়ে পেঁয়াজ নিয়ে চম্পট দিল চোর…

পূর্ব মেদিনীপুর:- সাত সকালে সবে পসরা সাজিয়ে বাজার বসেছিল। দিনের আলো ফুটতেই পায়ে পায়ে বাজারের পথ ধরছিল ক্রেতারা, কাঁচাবাজারে সব্জি, মাছের হাঁকডাকে হঠাৎ-ই ছন্দপতন! গুদাম খুলে মাথায় হাত ব্যাবসায়ী অক্ষয় দাসের। গুদাম থেকে উধাও হয়েছে ১০ বস্তা পেঁয়াজ, বর্তমানে যার বাজারমূল্য প্রায় ৫০,০০০ টাকা। ঘটনাটি ঘটেছে মঙ্গলবার ভোরে হলদিয়ার সুতাহাটা বাজারে। টাকা-পয়সা বা সোনাদানা নয়, তালা ভেঙে চোরের দল পেঁয়াজ নিয়ে গায়েব হয়ে গিয়েছে। অবস্থা দেখে হতাশ হয়ে কান্নায় ভেঙে পড়েছিলেন গুদামের মালিক অক্ষয় দাস।

চলন্ত ট্রেনে মহিলাকে পাথর ছুঁড়ে হামলা

মাঝরাতে গুদামের তালা ভেঙে পেঁয়াজ নেওয়ার সঙ্গে সঙ্গে এক বস্তা আলু আর এক বস্তা আদাও নিয়ে যেতে ভুলে যায়নি চোরের দল। উল্লেখ্য, দুই সপ্তাহ ধরে একলাফে পেঁয়াজের দাম সেঞ্চুরি করেছে। এই সপ্তাহের শুরুতে পাইকারি বাজারে পাল্লা প্রতি পেঁয়াজের দাম ছিল ৫০০ থেকে ৫৫০ টাকা।

খুচরো বাজারে ১০০ থেকে ১২০ টাকা প্রতি কিলোয় বিক্রি হয়েছে পেঁয়াজ। এখানেই শেষ নয়, পেঁয়াজের সঙ্গে পাল্লা দিয়ে ৩০ টাকা প্রতি কিলোর দিকে এগিয়ে চলেছে আলুর দাম। আদার কথা না হয় বাদ দিলাম, পেঁয়াজের অনেক আগেই আদা ডবল সেঞ্চুরি করে বসে আছে। এই পরিস্থিতিতে বেশ কয়েক বস্তা পেঁয়াজ, আলু আর আদা গুদামে তুলেছিলেন সুতাহাটা বাজারের ব্যবসায়ী অক্ষয় দাস।

দূরত্ব কমিয়ে ভাড়া বাড়ল মেট্রো

ভেবেছিলেন একটু একটু করে জোগান বজায় রাখবেন বাজারে। তাবে ভাতে ছাই দিয়েছে তস্করের দল। প্রতিদিন কত কি চুরি হয়। চৌর্যবৃত্তির কি আর বাছবিচার আছে। সোনা-দানা, টাকা-পয়সা ছেড়ে এখন বাজারের গোলাপি সোনায় হাত পড়েছে চোরের। সাবধান! আপনার ঘরের আলু, পেঁয়াজের ঝুড়ি সুরক্ষিত আছে তো?