Date : 2021-05-17

দোকানে যেতে হবে না, বড়দিনে কেক বানানো শিখে নিন আমাদের কাছে…

ওয়েব ডেস্ক:- চার্চ থাকবে, ক্যারল থাকবে, শীতের চাদরে উষ্ণ উৎসব বড়দিন থাকবে আর কেক থাকবে না, এও কি সম্ভব! সেই এক ঘেয়ে বেকারির চেনা স্বাদে বিরক্ত হয়ে গেছেন? চেনা ফ্রুট কেক, চকলেট কেক থেকে বেরিয়ে পড়তে চান? বাড়িতেই বানিয়ে ফেলুন। কেক তৈরির রেসিপিটা হয়তো অনেকেরই জানা, একবছর পর যারা নতুন করে বানাতে বসবেন আরও একবার চোখ বুলিয়ে নিন। অনেকেই ভাবেন কেক তৈরির ওভেন ছাড়া কেক বানানো সম্ভব নয়। এই ধারনা ছাড়ুন এবার, ঘরে একটা প্রেসার কুকার থাকলেই আপনার মুশকিলাসান হয়ে যাবে।

ফ্রুটস কেক তৈরি করতে যা যা লাগবে

মাখন আধা কাপ, চিনি আধা কাপ, ২টো ডিম, ১ কাপ ব্রাউন আটা বা ময়দা, ১ চামচ বেকিং পাউডার, ২ চামচ গুঁড়ো দুধ, ১ চামচ ভ্যানিলা এসেন্স, এক কাপ ড্রাই ফ্রুটস, একটা বেকিং ট্রে।

এবার বানিয়ে ফেলুন কেক….

প্রথমে একটি পাত্রে পরিষ্কার সাদা ময়দা নিন ১ কাপ পরিমান মতো। তাতে বেকিং পাউডার নিন ১ চামচ মতো। এরপর দুটো দুটো কাঁচা ডিম ফাটিয়ে ভালো করে মিশিয়ে নিন।

চোখে ঘুম নেই, শীতে ছড়িয়ে-ছিটিয়ে, ল্যাজ গুটিয়ে পড়ে আছে চন্দ্রবোড়া!

এরপর এই মিক্সচারের সঙ্গে আধ কাপ মাখন, আধ কাপ চিনি, ১ চামচ ভ্যানিলা এসেন্স ভালো করে মাখিয়ে নিন। ব্যাটারটা যতক্ষণ না পর্যন্ত পুরোপুরি মিশে যাচ্ছে ততক্ষণ মিশিয়ে যেতে থাকুন। এরপর দু চামচ গুড়ো দুধ যোগ করুন ব্যাটারের সঙ্গে। ভালো করে মেশানো হয়ে গেলে তার মধ্যে স্বাদ মতো কাজু, কিসমিস, চেরি, মিষ্টি কুমড়ো, আমণ্ড আর পছন্দ মতো ফল ছড়িয়ে দিন। এর পর যে মাঝারি মাপের পাত্রে কেক বেক করবেন তাতে বাটার ব্রাশ করে তাতে মিশ্রণটি ঢেলে দিন। এ বার একটি প্রেসার কুকার উপরের লিড খুলে মাঝারি আঁচে বসিয়ে দিন। ঢাকনা ঢেকে দিলেও প্রেসার কুকারের লিড খুলে রাখবেন। ৪-৫ মিনিট গরম করে নিয়ে পাত্রটি খালি প্রেসার কুকারের ভিতরে বসিয়ে দিন।

পাকার আগেই গাছ ছেড়ে মাটিতে! পাহাড়ে ক্ষতির মুখে ‘কমলা’ চাষিরা

এর পর প্রেসার কুকারের লিড ছাড়াই কুকার ঢেকে সামান্য আঁচে অন্তত ৩০ মিনিট বসিয়ে রাখুন। এই সময় ভুলেও জল দেবেন না।

৩০ মিনিট পর কেক হয়েছে কিনা তা দেখে নিন। কেক তৈরি হয়ে গেলে প্রেসার কুকারের ভেতরেই রেখে দিন ঠান্ডা হওয়া পর্যন্ত। ঠান্ডা হয়ে গেলে কেকের উপরে সামান্য চকোলেট সস ছড়িয়ে দিতে পারেন। বড়দিনের সকালে প্রিয়জনদের পরিবেশন করুন এই ফ্রুট কেক।