Date : 2022-09-29

ফিরে দেখা ২০১৯: একনজরে বিশ্ব ক্রীড়া জগতের রাউন্ড আপ…

ওয়েব ডেস্ক:- আর মাত্র কয়েক ঘন্টা বাকি। শেষ হতে চলেছে ২০১৯। বছর কি কি রেখে গেল? ক্রীড়া জগৎ-এর গোটা বছরের টপ ৫ রাউন্ড আপ রইল আপনাদের জন্য।

ইংল্যান্ড ওয়ার্ল্ড কাপ চ্যাম্পিয়ন

ক্রিকেট বিশ্বকাপ জয় ইংল্যান্ডের। বিশ্বকাপে শাপমুক্তি ঘটিয়ে ঘরের মাঠে চ্যাম্পিয়ন ইয়ন মরগ্যান-বেন স্টোক্সরা। ফাইনালে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে টানটান থ্রিলারের পর ম্যাচ জিতে শেষ হাসি হাসল স্টোক্সরা। নির্ধারিত ৫০ ওভারে দুই দলেরই রান সমান হয়ে যাওয়ার ম্যাচ গড়ায় সুপার ওভারে। সেখানেই বাজিমাত ইংল্যান্ডের। তবে রানের নিরিখে নয়। সুপার ওভারেও দুই দল একই রানে দাঁড়ানোয়, বাউন্ডারি সংখ্যার নিরিখে বিজয়ী হয় ইংল্যান্ড। টানা দুটি বিশ্বকাপের ফাইনালে উঠেও খালি হাতেই ফিরতে হয় কিউয়িদের। ম্যাচের সেরা হন বেন স্টোক্স। বিশ্বকাপের সেরা নির্বাচিন হন কেন উইলিয়ামসন।

টোকিও অলম্পিক কোয়ালিফায়ারে মেরি কম

ইডেনে পিঙ্ক বল টেস্ট

ভারতের মাটিতে বসল প্রথম গোলাপি বলের টেস্ট, তাও কংক্রিটের নন্দনকানন ইডেন গার্ডেন্সে। ক্রিকেটের স্বর্গোদ্যানে বাংলাদেশকে দুর্মুষ করে মাত্র আড়াই দিনে টেস্ট ম্যাচ পকেটে পুরল ভারত। ঐতিহাসিক টেস্টের সাক্ষী থাকলেন বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা, মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়, দাবাড়ু ম্যাগনাসরা। ছিলেন দুই দেশের বহু প্রাক্তন ক্রিকেটাররাও। বিসিসিআই সভাপতি পদে বসার পর থেকে সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায় দিন, রাতের টেস্টের হয়ে সওয়াল করেছিলেন। বিরাট কোহলি রাজি হওয়ায়, মসৃণ গতিতে ম্যাচ আয়োজিত হয়ে যায়। ঐতিহাসিক টেস্টে প্রথম ভারতীয় হিসাবে শতরান করে নিজের নাম স্বর্ণাক্ষরে লিখে রাখেন বিরাট কোহলি। ইনিংস ও ৪৬ রানে ম্যাচ জিতে দেশের মাটিতে প্রথম দিনরাতের টেস্ট জয়ের স্বাদ পায় কোহলি ব্রিগেড।

আগামী বছর টেনিসকে বিদায় , টুইটারে পোস্ট লিয়েন্ডারের

ইস্টবেঙ্গল সেন্টিনারি

শতবর্ষে ইস্টবেঙ্গল। মোহনবাগানের পর আরেক প্রধান ইস্টবেঙ্গলও দেখতে দেখতে শতবর্ষে পা রাখল। সারা বছর-ব্যাপী বিভিন্ন অনুষ্ঠান করেন লালহলুদ কর্তারা। লালহলুদের শতবর্ষে ভারত গৌরব সম্মান প্রদান করা হয় কপিল দেবকে। শতবর্ষের এক অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ও। এর আগে কুমারটুলি পার্ক থেকে জমকালো মিছিল করে গোটা শহর লালহলুদে মুড়ে ফেলেন সমর্থকরা। শতবর্ষের অনুষ্ঠানে লালহলুদের প্রাক্তন অধিনায়কদের সম্মান জানায় ইস্টবেঙ্গল কর্তারা।

মেসি ব্যালন ডি অর

ষষ্ঠবার ব্যালন ডি অর জিতলেন লিওনেল মেসি। ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডোকে পিছনে ফেলে ষষ্ঠবারের জন্য ফরাসি ফুটবল ম্যাগাজিনের বিচারে শ্রেষ্ঠ ফুটবলার নির্বাচিত হলেন এলএমটেন। লিভারপুলের ভ্যান জিক, জুভেন্তাসের রোনাল্ডোকে পিছনে ফেলে সেরার শিরোপা জেতেন মেসি। ২০১৫ সালের পর ফের এই পুরস্কার জিতলেন লিও। রোনাল্ডোর ঝুলিতে রয়েছে পাঁচটি ব্যালন ডি অর, মেশির থেকে ১টি কম। চলতি বছরে ফিফা দ্য বেস্ট পুরস্কার জেতেন মেসি। ২০০৯ সালের পর ২০১৯-এও ব্যালন ডি অর জিতে এই দশকে নিজের প্রতিপত্তির প্রমাণ রাখলেন ৩২ বছর বয়সি এলএমটেন।

চ্যাম্পিয়ন্স লিগ লিভারপুলের

চ্যাম্পিয়ন্স লিগ জয় লিভারপুলের। স্পেনের ওয়ান্ডা মেট্রোপলিটিয়ানো স্টেডিয়ামে টটেনহ্যাম হটস্পারকে ২-০ গোলে হারিয়ে ষষ্ঠবারের জন্য হারিয়ে ষষ্ঠবারের জন্য চ্যাম্পিয়নের শিরোপা জিতলেন মহম্মদ সালাহ-সাদিও মানেরা। ম্যাচের ২ মিনিটেই পেনাল্টি পায় লিভারপুল। স্পট কিক থেকে দলকে এগিয়ে দিতে ভুল করেননি লিভারপুলের তারকা স্ট্রাইকার মহম্মদ সালাহ। এরপর ৮৭ মিনিটে টটেনহ্যামের কফিনে শেষ পেরেকটি পুঁতে দেন লিভারপুলের ডিভক ওরিজি। গতবার রিয়ালের কাছে হেরে স্বপ্নভঙ্গ হয়েছিল রেডসদের। যুরগেন ক্লপের তত্ত্বাবধানে সেই স্বপ্নই পূরন হল ২০১৯ সালের ২ রা জুন।