Date : 2024-02-25

প্রধান শিক্ষকদের বদলি মামলায় হাইকোর্টে প্রশ্নের মুখে জেলা প্রাথমিক শিক্ষা সংসদ।

ষষ্ঠী চট্টোপাধ্যায়, সাংবাদিক : যারা আপনাদের হাতে তৈলমর্দন করবে তাদের পছন্দমত স্কুলে পোস্টিং দেবেন, তাই তো। পূর্ব মেদিনীপুর জেলার প্রধান শিক্ষক নিয়োগ মামলায় এমনই প্রশ্ন করেছেন বিচারপতি। ।

বদলি সংক্রান্ত সংসদের নীতি কী তাও জানতে চান বিচারপতি।

তিনি বলেন, মামলাকারি অনেক কিছুই চাইতে পারেন, মামলাকারি বলতে পারেন যে তাকে তার বান্ধবীর বাড়ির কাছে পোস্টিং দেওয়া হোক। কিন্তু পোস্টিংয়ের নির্দিষ্ট বিধি কোথায়।

হাওড়ায়, বাঁকুড়া, উত্তর ২৪ পরগনায় কাউন্সেলিং হলে পূর্ব মেদিনীপুরে কেন নয়, সেই প্রশ্ন তুলেছেন বিচারপতি।

তিনি বলেন, বারবার জিজ্ঞাসা করা হলেও জেলা প্রাথমিক শিক্ষা সংসদ বা রাজ্য কেউই নির্দিষ্ট বিধি দেখাতে পারেনি।

মামলাকারির দাবি, প্রধান শিক্ষকের প্যানেল তৈরি হওয়ার পরে কোন কাউন্সেলিং হয়নি। এবং তৃণমূলের শিক্ষক সংগঠনের সঙ্গে যুক্ত শিক্ষকদের বাড়ির কাছে পোস্টিং দেওয়া হয়েছে। কিছু রাজনৈতিক ব্যক্তি এই প্রক্রিয়ার সঙ্গে যুক্ত বলে মামলায় অভিযোগ।

এই অভিযোগ নিয়ে পূর্ব মেদিনীপুরের দুটি সার্কেলের সাতজন শিক্ষক আদালতের দ্বারস্থ হন।