Date : 2021-05-09

আরবের তীরে ড্রাগনের মেলা…

ওয়েব ডেস্ক:মানুষ যে চিরকালই ভ্রমণপ্রেমী, সেই কথা আর নতুন কী।

তবে যেকোনো জায়গায় ঘুরতে গেলে, সাধারণত সবাই সেই স্থানের সংস্কৃতি, ঐতিহ্য, ইতিহাস, এছাড়াও সুন্দর মন কাড়া প্রাকৃতিক দৃশ্যের আকর্ষনে যায়।

কিন্তু কোনোদিন শুনেছেন যে মানুষ কোথাও ঘুরতে গিয়েছে কেবল গাছ দেখতে। অবাক লাগছে তো। সেটাই স্বাভাবিক। কিন্তু ঘটনাটি একেবারেই সত্যি।

আরব সাগেরর বুকেই আছে এমন একটি দ্বীপ যেখানে গেলেই দেখা মিলবে এই অদ্ভুতুড়ে আকৃতির গাছগুলির। যেগুলিকে দেখলেই মনে পড়তে বাধ্য সত্যজিৎ রায়ের কল্পবিজ্ঞানের গাছগুলির কথা।

আরব সাগরের উপরে সকোত্রা দ্বীপে অবস্থিত এই জায়গাটি। এখানে এমন কিছু বিচিত্র আকারের গাছ রয়েছে যা দেখতে দূর দুরান্ত থেকে ছুটে আসেন টুরিস্টরা।

কিছু গাছের আকৃতি অনেকটা ব্যাঙের ছাতার মতো, আবার কিছুর গুড়ি এতোটাই মোটা যে দেখলে ভয় করবে। বিজ্ঞানীদের মতে এখানকার গাছগুলির এমন অদ্ভুত আকৃতি হওয়ার কারণ জলের অভাব।

এবং তাঁরা আরও বলেছেন যে এই গাছগুলি নাকি খুবই বিরলতম প্রজাতির গাছ, এবং দুষ্প্রাপ্যও বটে।

শুধু গাছই নয়, এখানে নাকি বেশ কিছু সরীসৃপেরও দেখা মেলে যেগুলির বিশ্বের কোনো জায়গাতেই দেখা মেলে না। ২০০৮ সালে ইউনেস্কো এই সাকোত্রা দ্বীপকে ওয়ার্ল্ড হেরিটেজ সাইট- এর তকমা দিয়েছে।

তবে এখানে গাছগুলির মধ্যে অন্যতম হল ড্রাগন গাছ। একবার কিন্তু ঘুরে আসতেই পারেন এই দ্বীপে। এমন অদ্ভুত গাছগুলিকে দেখে আপনার মনে হতেই পারে যে আপনি “বঙ্কুবাবুর বন্ধু”-এর দেশে চলে এসেছেন।