Date : 2022-10-02

টর্ন বা ছেঁড়া জিনস পরে কলেজে প্রবেশ করা যাবে না। এমনই একটি বিজ্ঞপ্তি ঘিরে তৈরি হয়েছে বিতর্ক

নাজিয়া রহমান, রিপোর্টার : কর্ণাটকের পর এবার পোশাক বিধি নিয়ে বিতর্ক এরাজ্যেও। টর্ন বা ছেঁড়া জিনস পরে কলেজে প্রবেশ করা যাবে না। এমনই একটি বিজ্ঞপ্তি জারি করেছে আচার্য জগদীশ চন্দ্র বোস কলেজ কর্তৃপক্ষ। এই বিজ্ঞপ্তি ঘিরেই শুরু হয়েছে বিতর্ক। কোনও পড়ুয়া টর্ন জিনস বা ছেঁড়া জিনস পরে কলেজে আসলে তাকে টিসি দিয়ে দেওয়া হবে বলে হুঁশিয়ারি কলেজ কর্তৃপক্ষের। শুধুমাত্র ছাত্র-ছাত্রীদের নয়, কলেজের কর্মীরাও যেন এই ধরনের পোশাক পরে না আসে বিজ্ঞপ্তিতে সাবধান করা হয়েছে। কলেজের দেওয়ালে লাগানো হয়েছে নোটিসটি।

কলেজ সূত্রের খবর, এই ধরনের পোশাক কলেজ পরে আসার ক্ষেত্রে শোভন নয়। প্রায়শই অনেক পড়ুয়াই এই ধরনের পোশাক পরে কলেজে আসেন। তাই এই ধরনের বিজ্ঞপ্তি বলে মনে করছেন শিক্ষকমহলে একাংশ। আবার অনেকে এই ঘটনার সঙ্গে কর্ণাটকের হিজাব বিতর্কের মিল খুঁজে পাচ্ছেন। কর্ণাটকে শিক্ষপ্রতিষ্ঠানে হিজাব পরা নিষিদ্ধ ঘোষণা করে একটি নির্দেশিকা জারি করে কর্ণাটক সরকার। যাকে কেন্দ্র করে বিতর্ক ছড়ায়। এই মর্মে মামলা পর্যন্ত হয়।

শুধুমাত্র কর্ণাটক নয় এমন পোশাকের ফতোয়া জারি নিয়ে অতীতে দেশের অনেক রাজ্যেই বিতর্ক ছড়িয়েছে। তবে, পোশাক ফতোয়া নিয়ে এরাজ্যে খুব বেশি নজির নেই। যদিও এই ধরনের বিজ্ঞপ্তি খাস কলকাতার কলেজে জারি হওয়ায় কিছুটা হলেও অসন্তোষ পড়ুয়াদের একাংশ।